শ্রীপর্ণা গঙ্গোপাধ্যায়

 



অ্যাসাইলাম

চোখের  সামনে দেখি কয়েকটি দেওয়াল।

আমি খালি পথ হাতড়াই।
পালিয়ে যাওয়ার পথ ,সুড়ঙ্গ ,গহ্বর।
আমাদের মাঝখানে স্তরে স্তরে জমে ওঠে
পাললিক শিলা।আমিষ গন্ধ কিছু ।
তৈলাক্ত গাঢ় অন্ধকার।

তখন থেকেই আমি ঘুমের ভিতরে
অর্থহীন বাক্য বলি, অর্থহীন বাক্য কিছু
বলি জাগরণে।  দুর্বোধ্য বাক্য ঠোঁটে নিয়ে

ঘর ছেড়ে ঘরের দিকেই  শুধু

চলে যেতে চাই, যেখানে জানলায় নামে
শুশ্রূষার  মেঘ,বৃষ্টি হয়ে।


এ কথাটা বোঝানো হলনা বলে কোনদিন কাউকেই,
বোঝানো গেল না বলে কাউকে কখনো ,
মানসিক হাসপাতালে ভিড় বেড়ে যায়।


--------------------------------------

ছবি ঋণ: গুগল


৩টি মন্তব্য:

  1. চমত্কার কবিতা। ঘুমের স্তরে স্তরে জমে ওঠা পাললিক শিলার অধিক্রম ছেড়ে জাগরণে বলে চলা দুর্বোধ্য বাক্য আর জানলায় নেমে আসা শুশ্রূষার মেঘ-বৃষ্টি এমন সব কাব্যভাষার শেষে অ্যাসাইলামের উল্খে কবিতাটিতে অন্য এক মাত্রা এনেছে। কবিকে অভিনন্দন!

    উত্তরমুছুন