অমলেন্দু চক্রবর্তী




ঝড় বাতাস 



    
ঝড়ের পূর্বাভাস, বাড়তে বাড়তে এক তালগাছ,ভাষায় নয়। প্রকৃত‌ই অস্বাভাবিক আচরণেই, নিঃশব্দ অর্ন্তনিহিত চোরাস্রোত। দৃশ্যত নয়। স্রোতের বহমান পথপ্রান্তরের শৈবালাকায় বেগবান নিস্তব্ধতা ভাঙচুর প্রবুব্ধতার কালোয়াতী। দারপিপাসা দরদরতনু রস আর কৃষ্ণকায় ক্যানভাসে সবুজের ধড়ফড়ানি বাঙ্কারে বাঙ্কারে ঝঙ্কার সারসের তাড়সের যন্ত্রণাক্লিষ্ট বেগবানস্রোতে আছিলাবেগ। রাখাল নামের "প্রি"অংবং বোঝানোর কোশাকুশি চুইয়ে পুষ্পপল্লব শঙ্খজলস্খলন। গুম গুম  গুম গুম করে ঘেরাবন্দী মোর্চাকরে ভুমিকা বাঁধছে। বিন্দু বিন্দু সিন্ধুর সম্পর্কের সময়। কদলীঝোপের পৃথিবী পেয়ে বসল।ভেতরের ভেক টররপ্যাঁকানি রমণ দীর্ঘ, অনুভবি জীবনের অংশভাক। জ্রিমভ্ম তোলা,তোলপাড় অসুখ বিসুখ‌ আগড়া পুড়া অঙ্গার পুলপারনি জ্বলনপুর্কি।  

 ঝড়ের পূর্বাভাসের‌ও দলিল দস্তাবেজ প্রস্তুতি পর্বান্তর আর‌ একটিবার। ঝড়বাদলের ভ্যাচাবাঁধা অথবা আমাদের জাড্যতা। স্রোতের স্রোতোস্বিনি এক বিমুর্ত যেনবা দুর্য়াশেনিথান নুড়িপাথর চাকচিক্য তিরতির বহতা শীর্ণ দীর্ন নদী। আর কালবোশেখীর ঝড় সে সব অনুলেহর চেয়ে কম কিসে! বনেদিজাট তবুও বাতাসের বারতা,ফিস ফিস কিন্নর সংকল্পবদ্ধ সঙ্গীত সংলাপ করতালি  আর নামুনে বদভঙ্গি। দাঁড়িয়ে অধঃস্বস্তিক চিহ্নিত। 
                   --ঝড় দাহাড়
                   --দড় দূর্গম গড়
                   --ভীমনাদের সুরাল
                   -- দাঁড়ের স্তম্ভ মতো
                   --পবন পর্বত মার্গের উচাটন
                   --প্রবীন নয় ?
                   --না সে চিরো নবীন
                   --বিজন বাতাসের মতো
                   --নির্ঝর নির্জন কায়াকান্নর মতো 
                   --স্থির সম্ভাবি অপেক্ষামান সময়
                   --এই বঞ্জর বেলায় একবুক আগুন
                   --সহস্র রঙ্গের রঙ্গবতি নৃত্য
                   --ঝর্ণা বাতির জলসা 
                   --সয়ম নটরাজ।
                   --স্থির বিকল্প জীবনের পাকস্থলী কলিজা রহিতাস্য অস্থি মজ্জা। পুর্বাভাস সেখান থেকেই, পৌষপৌরুষের রসময় বিহার বিলাস। স্বপ্নের‌ শরীরি উচ্ছাস উল্লাশ সে ঝড়ের উড়ন্ত পাখাল গন্ধে গন্ধে দলবদ্ধভাবে ডিগবাজি আর ডিজিটাল গান।
                    --ঝড়ের সংকেত হৃদয় বিদারি বিদিত বিদিশার স্থির শ্লথপদক্ষেপ 
                   --এর এক একটা খন্ডাংসে ঝড় বয়ে ব্যাড়ায় সেই সন্দ্বীপ্তের,সন্দর্ভে।
                  --এই অপেক্ষার বিড়ম্বনা।
                  --প্রহসন
                  --হীন স্বচ্ছতার
                  --ভাব গম্ভীর আচ্ছাদিত আকাশগঙ্গা
                  --বজ্রগর্ভের গর্ভবতী ঝড়ঝাপটা।
                  --একালের দুর্ভেদ্য পাড়পোড়ানো পুয়াতির জলমাটি  তেঁতুল সাতমৌলির ক্ষেত খামারপাড়া জলাধারে। পাকুড়ঝোলা বাঁধঘাটের অন্তিম অলিন্দে আবহ ঝোড়োগীত। ছেলে মেয়েদের বাঁধের জল তোলপাড় করা সাঁতার স্নান। অদ্ভুতভাবে তন্বিদের জলকেলি সম্পর্কের স্বপ্নরতি বয়ঃসন্ধির তারতম্য খুড়া জ্যাঠা দাদা ভাই। দুই চোখ দুইকান যৌবনের তারুণ্যের স্নানশিক্ত বসন। সম্পর্ক ?? মুখ মানে হাঁমুখ,কান দুটি, চোখ দুটি, নাকমুখ একটি বেশি বেশি না,নিছক নাড়ানোর জন্য।
                    
                    হো না হো ঝড়ের আগাম পুর্বাভাস, বজ্রানল চমক ধমক যেনবা ধ্বংসের খেলা শুরু হয়েছে। বাতাসের দাবানল দমনে অপারগ ঠিক ততখন‌ই যতক্ষণ না একখানা তান্ডব সৃষ্টি করা ঝড় প্রসব না করে।
                     --ঝড় ঘুলঘুলির পথ বেয়ে।
                     --বুকের অন্তস্থলে
                     --ফ্ল্যাস‌আলোর জোয়ার
                    --আলপথ ধরে আলেয়ার মতো
                    --আলোকের প্রতিফলন
                    --আলো আর আলো
                    --আলোর চমক আলোর ধমক
                    --আলোয় ভুবন ভরা ....
                    --ভল্টের শিরা উপশিরায় ঝড় যন্ত্রণাক্লিষ্ট ধড়পাকড় ধড়ফড়ানি চোরাচড়াই উৎরাই শিস দেওয়া ভয়ঙ্কর ভয়ানক রাঙা মেঘদল,দে দৌড় ক্রমশ অন্ধকার আলো আঁধারির মরুম্যান্ডলিন সাইক্লোন। 
                     --সেই ঝড় বাতাসে ঘুলঘুলি বয়া একরাস মুখোমুখি ভালোবাসার মান অভিমান‌ আলো স্থির স্থিতিশীল ভোরের মতো উদ্ভাসিত রণক্লান্ত অথচ রণবিজিত অলক্ষ্যের জয়মাল্য মুকুট সৌন্দর্য উপভোগ্য শ্লথগতির চারচাঁদ চারশত নক্ষত্র ব্রম্হান্ড গ্রহগ্রহান্তর যেনবা দাম্পত্যের ডিসটেন্সিং পরিবর্তিত পরিবারদ্বয় এই পরিবারের ঝড় নিঃস্তব্ধ দুরবর্তী তাই নিশ্চিত নিঃস্তব্ধ কোলাহল। একেবার নির্জন, কত ভাঙ্গন ধরা খন্ডহর গ্রাস গ্রহণ জ্বলন্ত হীমন্ত নিভন্ত অস্থির স্থির কেউ নেই ঠিকমতো শান্ত - - - - - - 
স্থির আলো স্থির‌অন্ধকার শূন্য পুর্ন .... শূন্য পুর্ন ~ ~ ~ ~ ঠিক ঐভাবেই ঘুলঘুলি বলিয়াই আলো - অন্ধকার অলিন্দ আলো -স্থির‌অন্ধকার স্থির‌অন্ধকার - স্থির‌আলো - - -অলিন্দের পঙ্কিল ঝড়ঝঞ্জার তবুও আলোআঁধারি।
                  --এগল্পের বাতায়ন হীনপ্রাণ 
                  --হীনপ্রাণ বাতায়ন পথ !!
                  --জীবিত প্রমানিত প্রাণিত 
                  --যন্ত্রবৎ যে,যাবত
                  --গোলার্ধের ৩ ভাগ‌ই তো জল
                   --আরে একভাগ স্থল সর্বজন বিদিত,নয় !! আলো অন্ধকার দিনরাত রাত দিন নির্ধারিত সময় অনুযায়ী এর কোন অন্যথা হয়না হতে পারেনা।
                  
                  --অপেক্ষার আলোকবর্ষ
                  --হাঁ অপেক্ষা অপেক্ষা আর অপেক্ষা
আলোকপথ অতিতুচ্ছ তালুক মুলুক অল্পক্ষণের জীবনানন্দ। অল্পসংখ্যাক আগুন নাই ফাগুন নাই
মাহ্ বছর, পলাশ শিমুল শাল সেগুন গরান হর্তুকি অমলতাস বঁদরঠ্যাগা  যুগ যুগান্তর,মাটি জল জঙ্গল পরতের পর পরত কুয়ান্টাম। এখানে কোন হাহাকার নয়, কোন খরস্রোতা জোড় জোড়িয়া শাখা প্রশাখা। এই জাগতিক ভীষণ ভীষন জাগ্রত। জীবন ঘুমায় জীবন জাগে জীবনের আহারে জীবন জীবিকার বিহারের। সদা সতর্কশব্দ অহরহ  বিচ্ছিন্নতার বিলগ্নতার বিভঙ্গতার আপ্রাণ,চলটাওঠার প্রলেপচাকার গঙ্গার পলিপর্ব অথবা প্রলেতারিয়েত প্রদাহপ্পন নমস্যনামের হাকুপাকুড় স্বচ্ছ এবং সচল সটান বিন্দু থেকে বৃহৎ বিস্তীর্ণ বিন্দু পর্যন্ত কেবল‌ই ঝড় বাতাস সোঁ সোঁ সোঁ শব্দে  - - - - - -