রাজদীপ ভট্টাচার্য





বন্দীশিবির থেকে 


রাস্তায় কোনো মানুষ নেই, শুধু পেঁচো ভূতেরা একপেট খিদে নিয়ে আতঙ্কের সাথে হাডুডু খেলছে !

সারাদিন টিভিতে কার্টুন দেখছি, নিউজ চ্যানেল চালালেই সংক্রামক অ্যাম্বুলেন্সের হুটার।

কেজিখানেক চাল, আলু, সোয়াবীনের প্যাকেট আর ভালোবাসার ছোট্ট পাউচ -- এইতো লাগে বেঁচে থাকতে! তবু তা জানতে এত দেরি হয়ে গেল। 

'মৃত্যু' আর 'ব্যবসা' শব্দদুটির মাঝে আঠা আছে, যে আঠায় জড়িয়ে রয়েছে মানবসভ্যতার উন্নতির চাবিকাঠি ! 

এ পৃথিবীর পাগলাগারদগুলিকে আজও আতঙ্ক ছুঁতে পারেনি, এসো আমরা গন্তব্য স্থির করি।

মনে মনে স্পর্শ করছি তোমায়, সারাদিন সারারাত।  বেদনায় নীল হয়ে যাচ্ছে নাছোড় দু'হাত !

কতদিন কেউ চুমু খায়নি আমায়, ধীরে ধীরে এভাবেই একদিন হারিয়ে যাবে চুম্বনশিল্পকলা ! 

সফল ঘাতকেরা চিরকাল অদৃশ্য হয়, এত ছোট যে তাদের দেখাই যায় না !

সারা শরীর মোড়া আছে সংক্রমণরোধী বর্মে, আমাকে আবার আগুনের কাছে ফিরিয়ে দাও সভ্যতা ! 

১০
শহরের প্রতিটি রাস্তাই সূর্যাস্ত বিন্দুর দিকে ঢালু হয়ে যায়, এত তাড়া কিসের বন্ধুরা! পথের পাশে কিছু ধাবা নিদেনপক্ষে চায়ের দোকান খুলে রেখেছেন ঈশ্বর।