সোমা ঘোষ

 



দুটি কবিতা

(১)  অমিয়বালা আরোগ্য নিকেতন

 

অথচ দ্যাখো স্মৃতিকথা লেখা হয় না কিছুতেই,

একগুঁয়ে রাত ছায়ারা এলোমেলো করে দেয় সবটুকু...

অমিয়বালা আরোগ্য নিকেতনের মাথায় জোড়া চাঁদ উঠতো রোজ নাচের মুদ্রার ভঙ্গিতে।

লাল অর্ন্তবাস ধীরে ধীরে গিলে নিতো জলপাই  

রঙা জ্যান্ত মেঘ।

সন্ন্যাস গভীর মধ্যরাত যাতায়াত।

জারুল গাছ ছায়া আড়াল গুনতে গুনতে মাছ প্রিয় রসিক বিড়াল।

উপবাসী ঝাঁপতাল গনগনে ভাত। উড়ন্ত ছাই বলেছিলো আবার আসবো—

তখন থেকে দু হাত ভরা ধুলো আমি ঠায় রোদ বিলাসী জানলা ঘেঁষে।

চোখে চোখে জড়িযে কুয়াশারা।

আমি ঠায়...

 

(২)    রাস্তায়

ঘুটঘুটে একটা জীবন থেকে দৌড়ে বেরোতে  চাইছে লোকটা।

চারদিকে বিপুল রাস্তা ব্যস্ত রাস্তা সন্ধানীরা।

বেঁচে ফেরাটাই আসলে যে কি ভীষণ শিল্পময়....

দেওয়ালে দেওয়ালে বিজ্ঞপ্তি অগ্রিম চাই অগ্রিম

গুজব রটেছে শিল্পী চাই শিল্পী।

রাস্তা ভেজায় মোমবাতিরা।

 একদৃষ্টে ব্যস্ত রাস্তায় ...

--------------------------------------

ছবি ঋণ: গুগল


 


কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন