জ্যোৎস্না কর্মকার

 


দুটি কবিতা

 অলীক দহন


একান্ত স্পর্শের জন্য হাকলা হতেই

ক্ষেপলো গণিত

ছক হাতড়ে গণক ঠাকুর বললেন

এমন হয় না শোলোক



পাশাপাশি জেগে উঠলে চর

কাঁটা মুখ ঘর্ষণের ফুলকি সংগ্রাম,

তাড়িত পতঙ্গ পোড়ে, অনঙ্গ লাচার

ধর্মের কাহিনী না শোনে চোরা মন

 

 

 মাথুর 

 

না চাইতেই ভিক্ষাপাত্রে তুলে দিলে

আরো কটা দিনের লহনা

 যেন বিদায়ের পূর্বঘোষণা দূর ছাই

অথচ চাইলেও পাইনি কিছু তন্ডুলের ছাল

কিভাবে বাখান করবো দানাপানি

সাঙ্গ করবো অসময় খেলা মনোহর

রিক্ত দোলনায় ছায়া দোলে দোটানায়

তুষ্টি নদীর অন্য পারে কেঁদে মরে রাই

 


কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন